অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ হলেন শখ

ডেস্ক : প্রতিবারই কোন না কোন সমালোচনার সৃষ্টি করছেন মডেল-অভিনেত্রী শখ। কখনো নিলয়ের সাথে প্রেম, কখনো সেই প্রেমে ভাঙ্গনের ফলে খবরে পরিণত হতেন এই তারকা। বিজ্ঞাপন দিয়ে সবার নজর কাড়া এই অভিনেত্রী করে গেছেন একের পর এক বিজ্ঞাপন, নাটক এমন কি সিনেমাও। কিন্তু সম্প্রতি হীন আচরণে নাখোশ করে বসলেন নির্মাতাকে।

শখ

সে রেশ ধরেই অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ হলেন শখ। শিডিউল ফাঁসানোর দায়ে এ নিয়ে দ্বিতীয়বার নিষিদ্ধ হলেন তিনি। তবে এ নিষেধাজ্ঞা নাটক-সিনেমা সংশ্লিষ্ট কোন সমিতি-সংগঠনের নয়। এমনকি শখ অভিনীত নতুন কোন নাটকের গল্পও নয়। শখকে নিষিদ্ধ করেছেন পরিচালক রেদওয়ান রনি। প্রায় একই কারণে প্রতিনিয়ত অভিযুক্ত হচ্ছেন সময়ের অন্যতম এ জনপ্রিয় মডেল-অভিনেত্রী।

এটা এখন নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনায় মোড় নিয়েছে। তাই তো নির্মাণ-সংশ্লিষ্ট বেশির ভাগ মানুষ এখন শখের তুলনা করছেন মিডিয়া থেকে ফিরে যাওয়া তিন্নি-সারিকার সঙ্গে। এদিকে সম্প্রতি শিডিউল ফাঁসানোর গুরুতর অভিযোগ তুলে পত্রিকা অফিসে মেইল করেছেন জনপ্রিয় নির্মাতা রেদওয়ান রনি।

সেখানে তিনি উল্লেখ করেছেন, এনটিভিতে প্রচার চলতি জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘পরিবার করি কল্পনা’র পূর্বনির্ধারিত শুটিংয়ে তারিখ ছিল ২৬শে মার্চ। কিন্তু শখের দেখা নেই, পরিচালকের ফোনও রিসিভ করছেন না তিনি। খোঁজ নিয়ে জানা গেল, তিনি একটি বিজ্ঞাপনের শুটিং করছেন অন্য ইউনিটে। যদিও ২৫শে মার্চ সন্ধ্যা ৭টা ৫৭ মিনিটে সহকারী পরিচালকের মেসেজে শখ কনফার্ম করেছেন ২৬শে মার্চ শুটিংয়ের কলটাইম অনুযায়ী সকাল ১০টায় তিনি শুটিং স্পটে আসবেন। শখের ফিরতি কনফার্ম মেসেজ ছিল ৭টা ৫৮ মিনিটে তার নিজস্ব নম্বর থেকে।

ওই অভিযোগপত্রে আরও উল্লেখ করা হয়, এর আগেও একবার ধারাবাহিক নাটক ‘এফএনএফ’-এর সময় শিডিউল নিয়ে ঝামেলা করার কারণে পরিচালক রেদওয়ান রনি সিদ্ধান্ত নেন শখকে আর কোন নাটকে নেবেন না। এরপর টানা ৩ বছর শখকে নিয়ে কোন নাটকের শুটিং করেননি রনি। এর পর শখ সেই প্রসঙ্গে দুঃখ প্রকাশ করার দীর্ঘদিন পর তাকে ‘পরিবার করি কল্পনায়’ অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

এ প্রসঙ্গে রেদওয়ান রনি বলেন, আমি হতাশ বারবার শখের এ ধরনের নন-প্রফেশনাল আচরণে। একটি শুটিংয়ে অনেক সহশিল্পীর সঙ্গে সময় মিলানো থাকে, অনেক টাকা অর্থলগ্নির বিষয় যুক্ত থাকে, সেই সঙ্গে সঠিক সময়ে চ্যানেলে প্রচারের চাপ তো থাকেই। তার পরেও শখের মতো তথাকথিত এসব শিল্পী যদি এভাবে শিডিউল ফাঁসাতে থাকেন, তাহলে একজন নির্মাতার পক্ষে দর্শককে ভাল প্রডাকশন দেয়া অসম্ভব।

এদিকে রেদওয়ান রনির এমন লিখিত অভিযোগের সত্যতা কিংবা আত্মপক্ষ সমর্থনের জন্য শখের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করেও পাওয়া যায়নি।

তবে জানা গেছে, তিনি একটি বিজ্ঞাপনচিত্রের শুটিং নিয়ে খুবই ব্যস্ত সময় পার করছেন। এদিকে পরিচালক রেদওয়ান রনির প্রতি শখের বাবার স্পষ্ট মন্তব্য, চাইলে শখকে এ নাটক থেকে বাদ দিতে পারেন। তাতে শখের কোন সমস্যা নেই।

এদিকে ‘পরিবার করি কল্পনা’ ইউনিট সূত্রে জানা গেছে, শখের এমন আচরণের কারণে তাকে আবারও অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছেন রেদওয়ান রনি ও তার শুটিং ইউনিট।

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *